• মঙ্গলবার   ২২ জুন ২০২১ ||

  • আষাঢ় ৮ ১৪২৮

  • || ১২ জ্বিলকদ ১৪৪২

আজকের সাতক্ষীরা

দেবহাটায় মসজিদের ফলক ভেঙে নাম পরিবর্তনের চেষ্টার অভিযোগ

আজকের সাতক্ষীরা

প্রকাশিত: ২৮ মে ২০২১  

দেবহাটার চর রহিমপুরে জামে মসজিদের নাম পরিবর্তনের জন্য পূর্বের নামের ফলক ভেঙে ফেলার অভিযোগ পাওয়া গেছে। এবিষয়ে মসজিদ কমিটির জমিদাতা পরিবারের সদস্য মৃত সহিদুল ইসলামের ছেলে ইউনুছ আলী বাদি হয়ে থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন। অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, তাদের পূর্ব পুরুষের দেওয়া জমিতে ১৯৬৯ সালে মসজিদটি প্রতিষ্ঠা করা হয়। সেই সময় থেকে মসজিদটি চর রহিমপুর জামে মসজিদ নামে নামকরণ করা হয়। এরপর থেকে চর রহিমপুর, চরশ্রীপুর সহ আশে পাশের এলাকার মানুষ মসজিদটিতে নামাজ আদায় করে আসছে। গত ২/৩ মাস আগে সকলের সম্মতিক্রমে চর রহিমপুর, চরশ্রীপুর নাম দেওয়া হয়।

গতরমজান মাসে একজন দাতা মসজিদ সংস্কারের জন্য কিছু টাকা বরাদ্ধ দেন। সেই টাকা দিয়ে মসজিদের কাজ শুরু হয়। এসময় মসজিদের পূর্বের নাম মুছে ফেলে সভাপতি আবুল হাসান গাঈন মসজিদের নাম পরিবর্তন করে শুধু তাদের এলাকার নাম দেওয়ার জন্য চাপ দিতে থাকে। বিষয়টি স্থানীয়রা স্বাভাবিক ভাবে গ্রহন না করায় তিনি একটি গ্রæপকে দিয়ে বিরোধীতা শুরু করেন সভাপতি। এরপর বিষয়টি নিয়ে ২৭মে রাত সাড়ে ১২টার দিকে চরশ্রীপুর গ্রামের মৃত কাশেম গাঈনের ছেলে বর্তমান সভাপতি আবুল হাসান গাঈন, একই এলাকার মৃত মজিদ গাঈনের ছেলে রেজাউল গাঈন, মৃত এলাহী গাঈনের ছেলে শুকুর আলী গাঈন, সিরাজুল গাঈনের ছেলে রাজু গাঈন সহ ১৫/২০ জন মিলে মসজিদের নাম লেখা টাইলস ভেঙে ফেলে।

এ বিষয়ে সভাপতি আবুল হাসান গাঈন জানান, মসজিদটি ২ গ্রামে অবস্থিত হওয়ায় এর নাম চর রহিমপুর, চরশ্রীপুর নামে চলছিল। কিন্তু আমরা চরশ্রীপুর নামটি আগে দেওয়ায় নিয়ে গোলযোগ চলতে থাকে। বিষয়টি নিয়ে বসাবসি করার কথা আছে। কিন্তু আমরা নাম ফলক ভাঙ্গতে যায়নি। দেবহাটা থানার অফিসার ইনচার্জ বিপ্লব কুমার সাহা জানান, মসজিদের নাম ফলক ভেঙে ফেলার বিষয়ে একটি অভিযোগ পেয়েছি। বিষয়টি তদন্ত করে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

আজকের সাতক্ষীরা
আজকের সাতক্ষীরা