• সোমবার   ২১ সেপ্টেম্বর ২০২০ ||

  • আশ্বিন ৬ ১৪২৭

  • || ০৩ সফর ১৪৪২

আজকের সাতক্ষীরা
৬১

আরও দুই হাজার চিকিৎসক নিয়োগ হচ্ছে বিশেষ বিসিএসের মাধ্যমে

আজকের সাতক্ষীরা

প্রকাশিত: ২৮ জুলাই ২০২০  

আরও নতুন দুই হাজার চিকিৎসক নিয়োগ হচ্ছে বিশেষ বিসিএসের মাধ্যমেই। এ লক্ষে ৪২তম বিসিএস পরীক্ষাই হবে ‘বিশেষ বিসিএস’। স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় থেকে চাহিদাপত্র আসার প্রেক্ষিতে সোমবার বিশেষ বিসিএসের জন্য নিয়োগবিধি ঠিক করেছে সরকারী কর্মকমিশন (পিএসসি)।

কমিশনের সূত্রগুলো নিশ্চিত করেছে, নিয়োগবিধি সংশোধনের জন্য একটি প্রস্তাব এখন পাঠানো হবে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ে। প্রস্তাব পাস হলেই প্রক্রিয়া শুরু হবে। এর আগে চিকিৎসক নিয়োগে ৩৯তম বিশেষ বিসিএসের সময়েও নিয়োগবিধি সংশোধন করা হয়েছিল। কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, করোনাভাইরাস মোকাবেলায় আরও দুই হাজার চিকিৎসক নিয়োগের সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। তবে কোন ননক্যাডার তালিকা থেকে এ নিয়োগ হবে না। সম্পূর্ণ নতুন বিসিএসে এই নিয়োগ দেয়া হবে। নিয়োগের জন্য স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় থেকে চাহিদাপত্র আসার পর পিএসসি এখন বিশেষ বিসিএসের মাধ্যমে নিয়োগের উদ্যোগ নিয়েছে।

পিএসসির একাধিক কর্মকর্তা সোমবারের বৈঠকের পর জনকণ্ঠকে বলেন, নতুন বিসিএসের মাধ্যমে নিয়োগ দেয়ার চাহিদাপত্র এসেছে আমাদের কাছে। নিয়োগবিধি ঠিক করা হয়েছে। এটি এখন জনপ্রশাসনে পাঠিয়ে দেয়া হবে। তবে ৩৮ ও ৩৯তম বিসিএসের প্রার্থীরা বলছেন, তাদের মধ্য থেকেই নিয়োগ দেয়া হোক নতুন চিকিৎসকদের। ৩৯তম বিসিএসে উত্তীর্ণদের ভেতর থেকে আগেই চার হাজার ৭৯২ জন চিকিৎসককে নিয়োগের সুপারিশ করে পিএসসি।

একই বিসিএসে উত্তীর্ণ আট হাজার ৩৬০ জনকে নন-ক্যাডার পদে নিয়োগের জন্য রাখা হয়। এর মধ্যে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ শুরু হলে সেই আট হাজার ৩৬০ জনের মধ্য থেকেই গত মে মাসে দুই হাজার জনকে নিয়োগ দেয়া হয়। এই নন-ক্যাডারের তালিকায় আরও ছয় হাজার ৩৬০ জন চিকিৎসক আছেন অপেক্ষায়।

আজকের সাতক্ষীরা
আজকের সাতক্ষীরা
জাতীয় বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর